বসন্তকাল, সোমবার, ১৬ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১লা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ,১৭ই রজব, ১৪৪২ হিজরি, দুপুর ১:৫২
মোট আক্রান্ত

সুস্থ

মৃত্যু

  • জেলা সমূহের তথ্য
ন্যাশনাল কল সেন্টার ৩৩৩ | স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ | আইইডিসিআর ১০৬৫৫ | বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন ০৯৬১১৬৭৭৭৭৭ | সূত্র - আইইডিসিআর |

সারাদেশ

Share on facebook
Facebook
Share on google
Google+
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn

২বারের চ্যাম্পিয়নকে হাওয়ায় বাসিয়ে ফাইনালে মুম্বাই…

admin

ডেস্ক রিপোর্ট, বাংলারিপোর্ট টুয়েন্টিফোর ডটকম

আইপিএলের দশম আসরের লিগ পর্যায়ের সবচেয়ে সফল দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ১৪টি ম্যাচের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ম্যাচে জয় পেয়েছিল তারা (১০টি)। সবার আগে প্লে-অফ নিশ্চিত করেছিল তারা। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থেকে প্রথম কোয়ালিফায়ারে জায়গাও করে নিয়েছিল মুম্বাই। কিন্তু কোয়ালিফায়ার ম্যাচে রাইজিং পুনে সুপারজায়ান্টের বিপক্ষে হেরে সবার আগে ফাইনালে যেতে ব্যর্থ হয় ব্লুজরা।

তারা যে শক্তিশালী দল সেটার প্রমাণ দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার ম্যাচে দিয়েছে রোহিত শর্মারা। শুক্রবার দুর্বোধ্য বোলিংয়ে দুইবারের চ্যাম্পিয়ন কলকাতা নাইট রাইডার্সকে ১০৭ রানেই অলআউট করে দেয়। এরপর ৩৩ বল ও ৬ উইকেট হাতে রেখে জয় তুলে নেয়। নিশ্চিত করে আইপিএলের দশম আসরের ফাইনাল। রোববার ফাইনালে রাইজিং পুনে সুপারজায়ান্টের মুখোমুখি হবে তারা।

১০৮ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ১১ রানে প্রথম উইকেট হারায় মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ২৪ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে। ৩৪ রানে তৃতীয় উইকেট হারানোর পর ব্যাটিং বিপর্যয়ের আশঙ্কা দেখা দেয়। কিন্তু সেখান থেকে রোহিত শর্মা ও ক্রনাল পান্ডিয়া চতুর্থ উইকেটে ৫৪ রানের জুটি গড়ে দলের জয়ের ভিতটা গড়ে দেন। এরপর রোহিত শর্মা ২৪ বলে ১ চার ও ১ ছক্কায় ২৬ রান করে সাজঘরে ফেরেন। কিন্তু ক্রনাল পান্ডিয়া ৩০ বলে ৮টি চারে অপরাজিত ৪৫ রান করে দলকে ফাইনালে তুলে মাঠ ছাড়েন। তার সঙ্গে ৭ বলে ১টি চারে ৯ রানে অপরাজিত থাকেন কিরেন পোলার্ড।

বল হাতে কলকাতা নাইট রাইডার্সের পিযূস চাওলা ২টি উইকেট নেন। ১টি করে উইকেট নেন উমেশ যাদব ও কাল্টার নীল।

তার আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে সুবিধা করেত পারেনি কলকাতা নাইট রাইডার্স। ৩১ রানেই তারা হারিয়ে বসে পাঁচ-পাঁচটি উইকেট। সেখান থেকে ইশাঙ্ক জা¹ি ও সূর্যকুমার যাদবের ব্যাটে শতরান পেরোয় কলকাতা। জা¹ি ৩১ বলে ২৮ রান করেন। আর সূর্যকুমার ২৫ বলে করেন ৩১ রান। এ ছাড়া গৌতম গাম্ভীর ১২ ও সুনীল নারিন ১০ রান করেন। বাকিদের কেউ দুই অঙ্কের কোটা ছুঁতে পারেনি।

বল হাতে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কর্ন শর্মা ৪ ওভার বল করে ১৬ রান দিয়ে চার-চারটি উইকেট নেন। ৩ ওভার বল করে ১ মেডেনসহ ৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট জাসপ্রিত বুমরাহ। ২টি উইকেট নেন মিশেল জনসন। অপর উইকেটটি নেন লাসিথ মালিঙ্গা।

ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বোলার কর্ন শর্মা।

২০-০৫-২০১৭-০০-২০০-২০-আ-হৃ

Share on facebook
Facebook
Share on google
Google+
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn

সর্বশেষ খবর

Leave a Reply

সর্বাধিক পঠিত

আরো খবর পড়ুন...

বাংলারিপোর্ট টুয়েন্টিফোর ডটকম :
প্রধান সম্পাদক : লায়ন মোমিন মেহেদী
সম্পাদক ও প্রকাশক : লায়ন শান্তা ফারজানা
৩৩ তোপখানা রোড, ঢাকা
email: mominmahadi@gmail.com
shanta.farjana@yahoo.co.uk
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।