রেইনট্রির মালিক এক সপ্তাহ সময় পেল…

ডেস্ক রিপোর্ট, বাংলারিপোর্ট টুয়েন্টিফোর ডটকম

হোটেলে অবৈধভাবে বিদেশি মদ রাখার বিষয়ে ব্যাখ্যা দেয়ার জন্য আগামী ২৩ মে পর্যন্ত সময় পেলেন বনানী অভিজাত হোটেল রেইট্রির ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহ মো. হারুন আদনান।

শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগের তলবে বুধবার বেলা এগারোটায় তার উপস্থিত হওয়ার কথা থাকলেও অসুস্থতার কারণ দেখিয়ে হাজিরা থেকে বিরত থাকেন তিনি। তার বদলে আইনজীবী অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবীর শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের কার্যালয়ে উপস্থিত হন।

এ সময় হারুন আদনান অসুস্থ উল্লেখ করে হাজিরা দেয়ার জন্য তার পক্ষে এক মাসের সময় চেয়ে আবেদন করেন আইনজীবী অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবীর। আবেদনের প্রেক্ষিতে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত ‍অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান এক সপ্তাহের সময় মঞ্জুর করে হারুন আদনানকে আগামী ২৩ মে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরে হাজির হওয়ার জন্য নির্দেশ দেন।

বনানীতে একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় মামলা হওয়ার পর থেকে আলোচনায় আসে হোটেল রেইনট্রি। এরপর সেখানে অভিযান চালায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর ও শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তর।

গেলো ১৩ মে রেইনট্রি হোটেলে অভিযান চালায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর। তারা সেখানে অবৈধ কোনো কিছু পায়নি বলে জানায়। এর একদিন পর ১৪ মে শুল্ক গোয়েন্দাদের অভিযানের সময় হোটেল থেকে ১০ বোতল বিদেশি মদ উদ্ধার করা হয়।
কিন্তু কর্তৃপক্ষ উদ্ধার হওয়া বিদেশি মদের কোনো বৈধ কাগজ দেখাতে পারেনি। তাই ১৭ মে শুল্ক গোয়েন্দা কার্যালয়ে হাজির হয়ে এর জবাব দিতে চিঠি পাঠায় সংস্থাটি।

গেলো ২৮ মার্চ বনানীর রেইনট্রি হোটেলে জন্মদিনের অনুষ্ঠানে ডেকে নিয়ে দুই তরুণীকে ধর্ষণ করেন আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত ও তার বন্ধু নাঈম। এ সময় তাদের সহযোগীতা করেন সাদমানসহ অন্য ৩ জন। ঘটনার ৪০ দিন পর গেলো ৬ মে বনানী থানায় মামলা করেন ওই দুই তরুণী। এরপর থেকে সারা দেশে এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় ওঠে।

 

১৭/৫/২০১৭/০-২১০-১৭/আ/হৃ/