মেডিকেল শিক্ষার্থীরা মাঠে চিকনগুনিয়া প্রতিরোধে…

ডেস্ক রিপোর্ট, বাংলারিপোর্ট টুয়েন্টিফোর ডটকম

রাজধানী ঢাকায় চিকনগুনিয়া জ্বরের প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় সরকারি-বেসরকারি মেডিকেলের শিক্ষার্থীরা সচেতনতামূলক কার্যক্রম শুরু করেছেন। স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। সকাল ১০টা থেকে শুরু হওয়া এ কার্যক্রম চলবে দুপুর ২টা পর্যন্ত।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ, সেন্ট্রাল কলেজ এবং বেসরকারি বিভিন্ন মেডিকেল ও ডেন্টাল কলেজসহ মেডিকেলের প্রায় ১০ হাজার শিক্ষার্থী এ কাজ করছেন। ঢাকার অন্তত ১০০টি পয়েন্টে তারা সচেতনতামূলক কাজ করছেন। মেডিকেল শিক্ষার্থীরা ঢাকার বিভিন্ন এলাকা ভাগ করে এই কার্যক্রম চালাচ্ছেন। পুরো নগরীতে মেডিকেল শিক্ষার্থীরা চিকনগুনিয়া জ্বরের বাহক এডিস মশার প্রজনন ক্ষেত্র ধ্বংস করতে এবং এ রোগ নিয়ে জনসচেতনতা তৈরি করতে মাঠে থাকবেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক (রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখা) অধ্যাপক ডাক্তার সানিয়া তাহমিনা বলেন, আমরা চেয়েছিলাম ৯২টি স্পটে এই সচেতনতামূলক কার্যক্রমটি চালাবো। কিন্তু সেটি এখন আরও অনেক বেশি হবে। তিনি জানান, সাধারণ মানুষকে সতর্ক করতেই আজকের এই কার্যক্রম। কেবল ঘরের বাইরে নয়, ঘরের ভেতরে অর্ধস্বচ্ছ পানি, ফুলের টব, ফেলে রাখা কৌটা বা বোতল, পানির ট্যাংক, ছাদে জমে থাকা পানি, পরিত্যক্ত টায়ার, আবর্জনার স্তূপ বা ডাবের খোসার ভেতরেও জন্ম নেয় এডিস মশা। সিটি করপোরেশনের কর্মীরা ঘরের ভেতরে ঢুকতে পারে না। তাই ঘরে ঘরে সচেতনতা ছড়িয়ে দিতে সাদা অ্যাপ্রোন পরে মেডিকেল শিক্ষার্থীরা কাজ করবে।

আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম এই সচেতনতামূলক কার্যক্রমে মেডিকেল শিক্ষার্থীদের সাথে ধানমন্ডি ৩২ নম্বর লেকের আশেপাশে এডিস মশা নিধনে অংশগ্রহণ করেন। এসময় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেন, জনসচেতনতার মাধ্যমেই চিকনগুনিয়া প্রতিরোধ সম্ভব। তিনি বলেন, যে যার অবস্থান থেকে নিজের বাড়িঘর ও আশেপাশের এলাকা পরিষ্কার রাখলে এবং কোথাও পানি জমতে না দিলে এই চিকনগুনিয়া রোগ প্রতিরোধ সম্ভব।

আ-হৃ-১৮-০৬-১৭-০০-২০